Friday, January 28, 2022
Homeঅর্থনীতিচট্টগ্রামে থ্রিএস সেন্টার চালু করলো এনার্জিপ্যাক

চট্টগ্রামে থ্রিএস সেন্টার চালু করলো এনার্জিপ্যাক

চট্টগ্রামে থ্রিএস সেন্টার চালু করলো এনার্জিপ্যাক

ঢাকা ৭ নভেম্বর ২০২১ :

চট্টগ্রামে ওয়াইসি ডিজেল মেরিন ইঞ্জিন থ্রিএস সেন্টার চালু করলো শীর্ষস্থানীয় পাওয়ার, এনার্জি ও ইঞ্জিনিয়ারিং সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশন লিমিটেড (ইপিজিএল)। এ উপলক্ষে রবিবার( ৭ নভেম্বর) একটি ভার্চ্যুয়াল উদ্বোধনী অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ’র (সিসিসিআই) প্রেসিডেন্ট মাহবুবুল আলম। অনুষ্ঠানে ইপিজিএল’র সিইও ও এমডি হুমায়ুন রশিদ-সহ ইপিজিএল’র অন্যান্য সম্মানিত কর্মকর্তাবৃন্দও উপস্থিত ছিলেন।

দেশে ওয়াইসি ডিজেল মেরিন ইঞ্জিনের একমাত্র পরিবেশক ইপিজিএল। এটি চীনের এক নম্বর মেরিন ইঞ্জিন ব্র্যান্ড। নিরাপদ ও কার্যকরী কর্মক্ষমতা নিশ্চিতের উদ্দেশ্যে বিভিন্ন জাহাজে এই উন্নতমানের ইঞ্জিন ব্যবহার করা হয়। দেশে ক্রেতাদের মাঝে জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি পাওয়ায় ইতোমধ্যেই ঢাকায় একটি অত্যাধুনিক ওয়াইসি ডিজেল মেরিন ইঞ্জিন ‘থ্রিএস সেন্টার’ চালু রয়েছে। আসল স্পেয়ার পার্টস ও তাৎক্ষনিক সেবার মাধ্যমে ক্রেতাদেরকে দ্রুত ও উন্নত সেবার অভিজ্ঞতা প্রদান করতে ইপিজিএল এবারে চট্টগ্রামেও নিজেদের কার্যক্রম সম্প্রসারিত করেছে।

দেশের বাণিজ্যিক রাজধানী চট্টগ্রামে ইপিজিএল’র কার্যক্রমে এই নতুন সংযোজন নিয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করে প্রতিষ্ঠানটির সিইও ও এমডি হুমায়ুন রশিদ বলেন, “বাংলাদেশ একটি নদীমাতৃক দেশ, এবং পানি সম্পদ আমাদের অর্থনীতির অন্যতম চালিকাশক্তি। এ কারণে সরকার পানি সম্পদ উন্নয়নের মাধ্যমে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির ওপর বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে এক কার্যকরী শতবর্ষী পরিকল্পনা প্রণয়ন করেছে। এনার্জিপ্যাক সরকারের পরিকল্পনার সাথে সম্পূর্ণরূপে সংগতি রেখে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির লক্ষ্যে কাজ করছে এবং দেশের প্রবৃদ্ধিকে ত্বরান্বিত করছে। আমরা গ্রাহক সেবা, উন্নততর গুণগত মান এবং প্রশিক্ষণের ব্যাপারে বিশেষভাবে মনোযোগী।”

তিনি আরও বলেন, “বাংলাদেশের রয়েছে একটি বড়, অপার সম্ভাবনাময় বাজার। কিন্তু এই সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে হলে আমাদেরকে পরিবর্তনের পথে হাঁটতে হবে এবং নীতিমালা বাস্তবায়ন করতে হবে। চট্টগ্রাম আমাদের বন্দর নগরী; এটি সাংহাইয়ের মতো, দেশের ব্যবসায়-বাণিজ্যের প্রধান কেন্দ্রস্থল। অতীতে কাজ করা হয়নি এমন জায়গাগুলোতে মনোযোগ দেওয়ার এটিই শ্রেষ্ঠ সময়। এনার্জিপ্যাক বিশ্বাস করে যে, আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ অপেক্ষা করছে। তাই, এনার্জিপ্যাক নিজেদের চীনা অংশীদারিত্বের সাথে সমন্বিত হয়ে উদ্ভাবনীর বিকাশ নিরবচ্ছিন্ন রেখে যাচ্ছে, যা ধারাবাহিকভাবে চট্টগ্রাম, ঢাকা এবং সমগ্র দেশের প্রবৃদ্ধিকে ত্বরান্বিত করবে। চট্টগ্রামে মেরিন ইঞ্জিন থ্রিএস সেন্টার চালু করতে পেরে আমি অত্যন্ত আনন্দিত। এটি শক্তি, জ্বালানী এবং প্রকৌশল খাতে সমৃদ্ধির জন্য আমাদের প্রচেষ্টার প্রতিফলন।”

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মাহবুবুল আলম এই কার্যক্রমের প্রশংসা করে বলেন, “বহু বছর থেকেই এ খাতের প্রবৃদ্ধি ও উন্নয়নে দায়িত্বশীল ভূমিকা রেখে আসছে এনার্জিপ্যাক। নতুন থ্রিএস

সেন্টার চালুর মধ্য দিয়ে এনার্জিপ্যাক আবারও প্রমাণ করেছে যে, তারা দেশের মানুষ ও অর্থনীতির জন্য কাজ করছে। ইপিজিএল’র অন্যান্য

পণ্যের মতো উন্নত ওয়াইসি ডিজেল মেরিন ইঞ্জিন ক্রেতাদেরকে উচ্চ নির্ভরশীলতা, স্বল্প জ্বালানি ও পরিমিত রক্ষণাবেক্ষণ ব্যয়ের প্রতিশ্রুতি দেয়, যা ব্যবসার মালিক ও প্রকৌশলীদের জন্য স্বস্তিদায়ক হবে বলে মনে করি।”

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments