নরসিংদীর অলিপুরায় নৌকার প্রার্থী পরিবর্তন, এবারও মনোনয়ন পেল বিতর্কিত প্রার্থী

নরসিংদী প্রতিনিধি:

দ্বিতীয় ধাপে নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার ১০ এবং সদর উপজেলার ২টিসহ মোট ১২ ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে আগামী ১১ নভেম্বর। ইতিমধ্যেই সবকটি ইউনিয়নে দলীয় প্রার্থীতা চূড়ান্ত করেছে ক্ষমতাসীন দল বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ। তবে বিতর্কিত হওয়ায় দলীয় মনোনয়ন জমা দেয়ার একদিন পর রায়পুরা উপজেলার অলিপুরা ইউনিয়নের নৌকার প্রার্থী পরিবর্তন করা হয়েছে। ২০১৬ সালের নির্বাচনে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী হিসেবে নির্বাচনে অংশ নেয়া প্রার্থী উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এস এম ওবায়দুল হক বাবলু এবার দলের মনোনয়ন পাওয়ায় আপত্তি আসায় বৃহস্পতিবার বিকেলে সেখানকার প্রার্থীতা পরিবর্তন করে দলটি। নতুন করে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সহ-সভাপতি আলামিন ভুইয়া মাসুদকে।

তবে এবারও বিতর্কের অবসান হয়নি দাবি করে তৃনমূলের নেতা-কর্মীরা বলছেন, এক সময়ে ছাত্রদলের কঠোর নেতা হিসেবে পরিচিত মাসুদ দলের জন্য হুমকী এবং অনুপ্রবেশকারী হিসেবেই বেশি পরিচিত। তাই অন্যদল থেকে এসে পদধরারী হলেই প্রকৃত আওয়ামীলীগ বলা যাবে না, ফলে বিতর্ক থেকেই গেল।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে প্রথমে মনোনয়ন পাওয়া ওবায়দুল হক বলেন, আমি গত নির্বাচনে বিদ্রোহী প্রার্থী ছিলাম না। দলের নেতা-কর্মীদের নির্দেশে নির্বাচন থেকে সরে দাড়ালেও আমার প্রতীকে কিছু ভোট পরেছিল, যা পুঁজি করেই আমার প্রতিপক্ষরা আমার মনোনয়নের ব্যপারে আপত্তি জানিয়েছে। তবে আজ যাকে মনোনয়ন দেয়া হলো তিনি আওয়ামীলীগের অনুপ্রবেশকারী হিসেবে চিহ্নিত। বিএনপি-ছাত্রদলের একনিষ্ঠ কর্মীকে নৌকা তুলে দেয়া হলো।

মনোনয়ন পাওয়া আলামিন ভুইয়া মাসুদ বলেন, তৃনমূল থেকে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ আমাকে একক প্রার্থী হিসেবে দাবী ঘোষণা করেছে। তবুও কেন বিদ্রোহীকে প্রার্থী দলীয় মনোনয়ন পেয়েছিলেন তা আমার যানা নাই। কেন্দ্রীয় কমিটির যাচাই-বাছাইয়ের মধ্যদিয়ে আজ আমি দলীয় মনোনয়ন হাতে পেয়েছি। তবে ছাত্রদলের কমিটিতে নাম থাকার বিষয়টি সত্য নয় বলেও দাবী করেন তিনি।

প্রার্থীতা পরিবর্তন হয়েছে নিশ্চিত করে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আফজাল হোসেন জানান, দলের সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে গত নির্বাচনে অংশ নেয়ার অভিযোগে ওবায়দুল হকের মনোনয়ন পরিবর্তন করা হয়েছে। তবে কেন্দ্রীয় আপিল কমিটি যাচাই-বাছাই করে মনোনয়ন বাতিল এবং প্রদানের ক্ষমতা সংরক্ষণ করেন। এব্যপারে আমাদের মন্তব্য করা ঠিক হবে না।

অলিপুরা ইউনিয়ন থেকে ৪ জনের নাম প্রস্তাব করে কেন্দ্রে পাঠায় উপজেলা আওয়ামীলীগ। তালিকার তিন নম্বরে স্থান পেয়েছেন চারবারের নির্বাচিত সাবেক চেয়ারম্যান ও উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি আলী আহমেদ দুলু।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here