রকিবের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক বিচ্ছেদের খবর দিলেন মাহি

কান্নাজড়িত কণ্ঠে বিয়ের মাত্র আড়াই বছরের মাথায় ১৬ ফেব্রুয়ারি রাতে ফেসবুকে রকিবের সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদের ঘোষণা দেন ঢাকাই সিনেমার আলোচিত নায়িকা মাহিয়া মাহি। কিন্তু বিচ্ছেদের নেপথ্যে স্পষ্ট কোনো কারণ ব্যাখ্যা করেননি মাহি।  এবার গণমাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে স্বামী রকিবের সঙ্গে আনুষ্ঠানিকভাবে বিচ্ছেদ হয়ে গেছে বলে জানিয়ে দিয়েছেন নায়িকা। অভিনেত্রীর ভাষ্য, ‘আমরা দুজনেই চেষ্টা করেছি। যখন দেখেছি চেষ্টা করেও লাভ হচ্ছে না, তখন আসলে চেষ্টাটা ছেড়ে দিয়েছি। একসঙ্গে থেকে তিক্ত হওয়ার চেয়ে বন্ধুত্বটা থাকা ভালো। যেহেতু ও ফারিশের বাবা এবং এখনো ওর সঙ্গে আমার কথা হয় নিয়মিত, যোগাযোগ আছে। ফারিশকে নিয়ে কথা হয়, ফারিশের কী প্রয়োজন এবং ও খুব যত্নবান একজন মানুষ। ওর সঙ্গে আমার সম্পর্ক নেই, কিন্তু ও ফারিশের ব্যাপারে এতটা কেয়ারিং, আমার মনে হয় পৃথিবীতে এমন বাবা পাওয়াটা খুব টাফ।’

বিচ্ছেদ হয়ে গেলেও পুরো সাক্ষাৎকারে রকিবের প্রশংসায় পঞ্চমুখ ছিলেন মাহিয়া মাহি। অভিনেত্রী বলেছেন, ‘আমার জীবনের যতটুকু রাজনৈতিক অর্জন করেছি, সবটাই ওর জন্য। একটা পোস্টার থেকে শুরু করে রাজনৈতিক যে কোনো কিছু, ও এত সুন্দর করে সব গুছিয়ে দিয়েছে আমাকে, একা হলে কখনই পারতাম না। এর পেছনে সব কৃতিত্বই রকিবের। ও মানুষটা অনেক ভালো, এই তিনটা বছর আমি তাকে কাছ থেকে দেখেছি। সে ভীষণ ভালো একজন মানুষ, পরোপকারী। কিন্তু আমার প্যাটার্ন এবং ওর প্যাটার্ন আলাদা— দ্যাটস ইট।’

সামনে কেমন ধরনের চলচ্চিত্রে থাকবেন, তেমন আভাসও দিয়েছেন নায়িকা। অভিনেত্রীর ভাষ্য, ২০২৪ থেকে যত সিনেমা করবেন, সবই হবে ভালো ভালো প্রজেক্টের। কোনো সাধারণ প্রজেক্টে কাজ করবেন না তিনি। মাহি এখন শূন্য থেকে শুরু করতে চান। আগের মতো জনপ্রিয় বা তার চেয়েও বেশি জনপ্রিয়তায় নিয়ে যেতে চান নিজেকে। কাজের বিষয়ে খুবই সিরিয়াস তিনি।

সূত্র: কালেরকন্ঠ

সর্বশেষ