ভৈরবে ধরা খেল মোবাইলের IMEI পরবর্তনকারী সাইবার অপরাধী

এম আর ওয়াসিম ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি কিশোরগঞ্জের ভৈরব থানাধীন কালিকাপ্রসাদ বাসস্টান্ডে ”মা-বাবার দোয়া টেলিকম” থেকে বিপুল পরিমান চোরাইকৃত মোবাইল ফোন, IMEI পরিবর্তণ করার ডিভাইস, ল্যপটপ ও ডেক্সটপসহ আনুমানিক ১২ লক্ষ টাকার মালামাল উদ্ধার ও ১ জন সাইবার অপরাধীকে আটক করেছে র্যাব -১৪ সিপিসি-২, ভৈরব ক্যাম্প। বর্তমান ইন্টারনেটের যুগে সবচেয়ে জটিল সমস্যার নাম হচ্ছে সাইবার ক্রাইম।কম্পিউটার ও ইন্টারনেট ব্যবহারের মাধ্যমে মোবাইলের কোড পরিবর্তণ করে অপরাধীরা নানা ধরনের অপরাধমুলক কর্মকান্ডের সাথে জড়িত হচ্ছে । চুরি বা ছিনতাই করা মোবাইলের IMEI কোড পরিবর্তণ করে অপরাধীরা অপরাধ কর্মকান্ড পরিচালনা করলেও তাদের চিহ্নিত করা আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর জন্য কষ্ট সাধ্য হয়ে দাড়িয়েছে। কিছু অসাধু ব্যবসায়ী রয়েছে যারা এই চোরাই বা ছিনতাইকৃত মোবাইল সংগ্রহ পূর্বক IMEI নাম্বার পরিবর্তণ করে অপরাধীদের নিকট সরবরাহ করে আসছে।এসকল আসাধু ব্যবসায়ীদের আইনের আওতায় আনার জন্য উদ্যোগ গ্রহন করে র্যাব -১৪সিপিসি-২, ভৈরব ক্যাম্প । শুরু হয় স্থানীয় পর্যায়ে অনুসন্ধান।অনুসন্ধানের একপর্যায়ে র্যাব -১৪ সিপিসি-২, ভৈরব ক্যাম্প জানতে পারে যে, কিশোরগঞ্জের ভৈরব থানাধীন কালিকা প্রসাদ বাসস্ট্যান্ডে “মা-বাবার দোয়া” টেলিকমে IMEI নাম্বার পরিবর্তণ সংক্রান্ত অবৈধ কার্মকান্ড পরিচালিত হয়।

এরই ধারাবাহিকতায় গতকাল ২৯/০৩/২০২৪ খ্রিঃ তারিখ সকাল ০৮.৩০ ঘটিকা থেকে ১১.০০ ঘটিকা পর্যন্ত সময়ে র্যাব-১৪, সিপিসি-২, ভৈরব ক্যাম্পের একটি আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ক্যাম্প কমান্ডার লেফটেন্যান্ট মোঃ ফাহিম ফয়সাল এঁর নেতৃত্বে ভৈরবে কালিকাপ্রসাদ ইউনিয়নে কালিকাপ্রসাদ বাসস্ট্যান্ডে মোঃ সারোয়ার মিয়ার “মা-বাবার দোয়া টেলিকম”এ অভিযান পরিচালনা করে -কালিকাপ্রসাদ ঝগরারচর,গ্রামের কালাম মিয়ার পুত্র মোঃ সারোয়ার মিয়া(১৯) কে গ্রেফতার করে এবং তার হেফাজত থাকা ৭৪ টি অবৈধ মোবাইল ফোন, যার আনুমানিক মূল্য ১০,০০০০০/- টাকা, IMEI পরিবর্তণ কাজে ব্যবহৃত ১ টি ল্যাপটপ, যার আনুমানিক মূল্য ৫০,০০০/- টাকা, ১ টি ডেক্সটপ কম্পিউটার, যার আনুমানিক মূল্য ৫০,০০০/- টাকা, ১টি হার্ড ডিক্স ড্রাইভ, যার আনুমানিক মূল্য ৫,০০০/- টাকা নগদ- ৪৮,৬০০/- টাকা, ১টি ডিভিডি রাইটার, যার আনুমানিক মূল্য ৫,০০০/- টাকা ও ১টি IMEI পরিবর্তণ করা ডিভাইস, যার আনুমানিক মূল্য ২০,০০০/- টাকা উদ্ধারসহ সর্বমোট ১২ লক্ষ টাকার মালামাল উদ্ধার করেন। আসামীর বিরুদ্ধে ১৮৬০ সালের পেনালকোড আইনের ৪১৩ ধারা তৎসহ সাইবার নিরাপত্তা আইন ২০২৩ এর ২২ ধারায় কিশোরগঞ্জ জেলার ভৈরব থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। বলে জানায় র্যাব

সর্বশেষ