ইভিএম কেনার প্রকল্প আপাতত হচ্ছে না : ইসি সচিব

বৈশ্বিক অর্থনৈতিক প্রেক্ষাপটে আর্থিক সামর্থ্য বিবেচনায় নতুন করে ২ লাখ ইভিএম কেনার প্রকল্প আপাতত হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিবালয়ের সচিব মো. জাহাংগীর আলম।
রাজধানীর আগারগাঁও নির্বাচন ভবনে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, নির্বাচনি ব্যবস্থায় ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) ব্যবহার বৃদ্ধি এবং টেকসই ব্যবস্থাপনা শীর্ষক প্রকল্প বিস্তারিত পরীক্ষা নিরীক্ষা ও পর্যালোচনা করে বর্তমান বৈশ্বিক প্রেক্ষাপটে সরকারের সামর্থ্য বিবেচনায় আপাতত প্রক্রিয়াকরণ না করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ এই মুহূর্তে এটা রান করবে না, পরবর্তী সময়ে হয়তো রান করবে।
প্রকল্প না হলে কতগুলো আসনে ইভিএম দিয়ে নির্বাচন হবে এমন প্রশ্নের জবাবে সচিব বলেন, নির্বাচন কমিশন তার রোডম্যাপে বলেছিল; যদি নতুন ইভিএম কিনতে পারে তাহলে সর্বোচ্চ ১৫০টি আসনে ইভিএমে ভোট হবে। নতুন ইভিএম না পেলে বিদ্যমান ইভিএম মেশিন দিয়ে যত আসনে ভোট করা সম্ভব সেটা করা হবে। এই সিদ্ধান্ত আগেই জানানো হয়েছে। এখনও সেটা বহাল রয়েছে। কমিশন সরকারের এই সিদ্ধান্ত রোববার জানতে পেরেছে।
তিনি বলেন, আগেই বলা হয়েছে আমাদের হাতে যত ইভিএম রয়েছে তা নির্বাচনে ব্যবহার করা হবে। সেক্ষেত্রে ৫০টা থেকে ৭০টা আসনে হতে পারে। কোয়ালিটি চেক করে বলা যাবে বাস্তবে কতটিতে ইভিএম করা যাবে। ইসির কাছে দেড় লাখ ইভিএম মেশিন রয়েছে। এরমধ্যে কিছু হয়তো সচল নাও থাকতে পারে। সেগুলোর গুণগত অবস্থা যাচাই করে তা নিয়ে নির্বাচন করা হবে।
নির্বাচন কমিশন আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে ইভিএম কিনতে গত ১৯ অক্টোবর ৮ হাজার ৭১১ কোটি ৪৪ লাখ টাকার একটি প্রকল্প প্রস্তাব তৈরি করে পরিকল্পনা কমিশনে পাঠায়।

সর্বশেষ