উত্তরসূরি পাওয়া গেলে টুইটারের সিইও পদ থেকে সরে দাঁড়াবেন মাস্ক

উত্তরসূরি পাওয়া গেলে টুইটারের সিইও পদ থেকে সরে দাঁড়াবেন মাস্ক

জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটার প্রধান ইলন মাস্ক বলেছেন, উত্তরসূরি পাওয়া গেলে টুইটারের সিইও পদ থেকে তিনি সরে দাঁড়াবেন।
টুইটার ব্যবহারকারীদের মতামতের আপাত প্রতিক্রিয়ায় মাস্ক বুধবার এ ঘোষণা দেন।
ইলন মাস্ককে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী (সিইও) পদে চান না বলে সোমবার ভোটের মাধ্যমে এর ব্যবহারকারীরা জানিয়ে দিয়েছেন। এর আগে টুইটার ব্যবহারকারীদের ভোটের ভিত্তিতে বেশ কয়েকটি সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন ইলন মাস্ক। এরপর সোমবার এক টুইট পোস্টে তিনি জানতে চান, সিইওর পদ থেকে তাঁর সরে দাঁড়ানো উচিত কিনা। ওই সময় এই ঘোষণাও দিয়েছিলেন, মতামত জরিপে যে ফল আসবে, তা মেনে নেবেন তিনি।
ইলন মাস্কের টুইটার হ্যান্ডেলে অনুসারী রয়েছেন ১২ কোটি ২০ লাখ। এর মধ্য ১ কোটি ৭৫ লাখ ভোট পড়েছে ওই জরিপে। এতে ৫৭ দশমিক ৫ শতাংশ টুইটার ব্যবহারকারীর রায় হলো, সিইওর পদ থেকে ইলন মাস্কের সরে দাঁড়ানো উচিত। আর ৪২ দশমিক ৫ শতাংশ ব্যবহারকারী চান তিনি এই পদেই থাকুন।
এ প্রেক্ষিতে টুইট করে তিনি বলেছেন, ‘সিইও পদে চাকরি নেওয়ার মতো যথেষ্ট ‘বোকা’ কাউকে পেলেই সরে দাঁড়াব। তারপর আমি শুধু সফটওয়্ার আর সার্ভার টিমের দেখাশোনা করব।’
গত ২৭ অক্টোবর ইলন মাস্ক টুইটারের মালিক হওয়ার পরই বেশ কিছু বিতর্কিত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। মালিকানা নেওয়ার পরই প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্মকর্তাদের বিদায় করেছেন।
তিনি বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান টেসলা, মহাকাশযান নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্পেসএক্সেরও প্রধান। টুইটার তিনি ৪৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে সম্প্রতি কিনেছেন।
এদিকে বিশ্লেষকরা বলছেন, টুইটারের দায়িত্ব নেয়ার পর টেসলার শেয়ার মূল্য এক তৃতীয়াংশ কমে গেছে। টেসলা বোর্ড এ কারনে টুইটার ছেড়ে দিতে ইলন মাস্ককে চাপ দিচ্ছে।

সর্বশেষ