Wednesday, October 5, 2022
Homeখেলাধূলাখুলনাকে হারিয়ে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে চট্টগ্রাম

খুলনাকে হারিয়ে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে চট্টগ্রাম

আকাশ দাশ/ক্রীড়া প্রতিবেদকঃ বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) এলিমিনিটর ম্যাচে খুলনা টাইগার্সকে ৭ রানে হারিয়ে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স।

আজ মিরপুর জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) এলিমিটর ম্যাচে খুলনা টাইগার্সের বিপক্ষে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের। দলীয় ১২ রানের মাথায় সাজঘরে ফিরেন ওপেনার জাকির হোসেন। তিনে ব্যাট করতে নেমে অধিনায়ক আফিফ হোসেন ফিরেন রুহেল মিয়ার শিকার হয়ে ৩ রান করে। ব্যাট ঝড় তুললেও ইনিংস বড় করতে পারেনি কেনার লুইস। নাবিল সামাদের শিকার হয়ে ফিরেন ৩৯ রানে। আরেক টপঅর্ডার শামীম হোসেন ফিরেন ১০ রানে

দ্রুত চার উইকেট হারিয়ে বসা চট্টগ্রামের হয়ে এইদিন ইনিংস মেরামতের দায়িত্ব পড়ে মেহেদী হাসান এবং চ্যাডউইক ওয়ালটনের কাঁধে। তবে ব্যক্তিগত ৩৬ রানের মাথায় মেহেদী হাসানকে ফিরিয়ে তাদের গড়া ১১৫ রানের ভয়ঙ্কর জুটি ভাঙে খালেদ আহমেদ। মেহেদী ফিরলেও ৪৪ বলে ৭টি করে চার-ছয়ে ৮৯ রানে অপরাজিত থাকেন ওয়ালটন। নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৮৯ রানের সংগ্রহ পায় চট্টগ্রাম। খুলনার হয়ে খালেদ আহমেদ নেন ২টি উইকেট। ১টি করে উইকেট নেন নাবিল সামাদ, রুহেল মিয়া এবং মেহেদী হাসান।

জবাব দিতে নেমে দলীয় ২১ রানের মাথায় ওপেনার মেহেদী হাসানকে হারায় খুলনা। মেহেদীর বিদায়ে তিনে ব্যাট করতে নামা সৌম্য ফিরেন ১ রান করে। সৌম্যের বিদায়ে ব্যাট করতে আসা অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমকে সঙ্গী করে তৃতীয় উইকেট জুটিতে ৬৪ রান তুলেন অনয ওপেনার আন্দ্রে ফ্লেচার। তবে ব্যক্তিগত ৪৩ রানের মাথায় মুশফিককে ফিরিয়ে সেই জুটি ভাঙেন মেহেদী হাসান।

মূশফিকের বিদায়ে এইদিন আরেক টপঅর্ডার ইয়াসির আলিকে সঙ্গী করে ৬৫ রানের আরেকটি জুটি গড়েন ফ্লেচার। তবে ব্যক্তিগত ৪৫ রানের মাথায় ইয়াসিরকে ফিরিয়ে সেই জুটি ভাঙেন শরিফুল ইসলাম। দলের এমন অবস্থায় শেষপর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৮২ রানে আটকে যায় খুলনা। ৫৮ বলে ৬টি চার এবং ৪টি ছক্কায় ৮০ রানে অপরাজিত থাকেন ফ্লেচার। চট্টগ্রামের হয়ে মেহেদী হাসান নেন ২টি উইকেট। একটি করে উইকেট নেন শরিফুল ইসলাম, নাসুম আহমেদ এবং মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরী।

এইদিকে বিপিএলের প্রথম কোয়ালিফায়ারে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ার্সকে হারিয়ে প্রথম দল হিসেবে ফাইনালে ফরচুন বরিশাল। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪৩ রান সংগ্রহ করে বরিশাল। জবাব দিতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৩৩ রানে আটকে যায় কুমিল্লা।

চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স ১৮৯/৫ (২০ওভার)
ওয়ালটন ৮৯* কেনার লুইস ৩৯
খালেদ ২/৪০ নাবিল ১/১৫

খুলনা টাইগার্স ১৮২/ (২০ ওভার)
ফ্লেচার ৮০* ইয়াসির ৪৫
মেহেদী ২/ ৪০ নাসুম ১/২৪

ফলাফলঃ চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স ৭ রানে জয়ী।
ম্যাচ সেরাঃ চ্যাডউইক ওয়ালটন।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular